হংকং গণতন্ত্রের সুবাতাসের পথেনির্বাচন অনুষ্ঠিত!

হংকং গণতন্ত্রের সুবাতাসের পথে:নির্বাচন অনুষ্ঠিত!

বিশ্ব সংবাদ

ডেস্ক বিপোর্টঃ রোববারের নির্বাচনে রেকর্ড ৭১ শতাংশের বেশি ভোটার উপস্থিতির কথা জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন। চীনের স্বায়ত্তশাসিত অঞ্চল হংকংয়ের স্থানীয় পরিষদ নির্বাচনে গণতন্ত্রপন্থী হিসেবে পরিচিত সরকারবিরোধী আন্দোলন সমর্থিত সংখ্যাগরিষ্ঠ প্রার্থী জয় পেয়েছেন। এ পর্যন্ত ঘোষিত ২৪১ আসনের ফলাফলে ২০১টিতেই জয় পেয়েছে গণতন্ত্রপন্থীরা। বেইজিংপন্থীরা সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেয়েছেন মাত্র ২৮টি আসনে। খবর বিবিসি’র।

এবারের স্থানীয় পরিষদ নির্বাচনে ৪৫২ আসনের বিপরীতে লড়ছেন এক হাজার ১০৪ জন। হংকংয়ে চলমান গণতন্ত্রপন্থী বিক্ষোভের নেতিবাচক প্রভাব নির্বাচনে পড়ার আশঙ্কা করা হলেও বাস্তবে শান্তিপূর্ণভাবেই ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হয়।

হংকংয়ে চলমান গণতন্ত্রপন্থী বিক্ষোভের নেতিবাচক প্রভাব নির্বাচনে পড়ার আশঙ্কা করা হলেও বাস্তবে শান্তিপূর্ণভাবেই ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হয়। একটি বিতর্কিত প্রত্যর্পণ বিলকে কেন্দ্র করে বৃহত্তর স্বাধীনতার দাবিতে কয়েক মাস ধরেই হংকংয়ে চলছে সরকারবিরোধী রক্তক্ষয়ী বিক্ষোভ। স্থানীয় পরিষদে প্রতিনিধিত্ব বাড়ানোর মাধ্যমে বেইজিংপন্থি প্রশাসনকে চাপে ফেলার লক্ষ নিয়ে অংশ নেয় গণতন্ত্রপন্থীরা।

নির্বাচনে হেরে যাওয়ার পর এমনই এক বিতর্কিত বেইজিংপন্থি আইনপ্রণেতা বলেন, যা ধারণা করা হয়েছিল তার সঙ্গে বাস্তবতার ‘আসমান-জমিন ফারাক’। এবারের নির্বাচনে ভোট দেওয়ার জন্য নাম তালিকাভুক্ত করেছিলেন রেকর্ডসংখ্যক হংকংবাসী। ভোট দেওয়ার জন্য রেজিস্ট্রেশন করেন ৪১ লাখ মানুষ, যা হংকংয়ের মোট জনসংখ্যার অর্ধেকেরও বেশি।

নির্বাচন ঘিরে চলতি সপ্তাহে প্রথমবারের মতো বিক্ষোভকারী ও পুলিশের মধ্যে কোনও ধরনের সংঘর্ষ বা সংঘাত হয়নি। ভোটদানের পর হংকংয়ের প্রধান নির্বাহী ক্যারি লাম বলেন, চরম চ্যালেঞ্জিং পরিস্থিতির মুখে আমি সন্তুষ্টচিত্তে বলছি, নির্বাচনের দিন পরিস্থিতি তুলনামূলকভাবে শান্ত ও শান্তিপূর্ণ ছিল।

প্লিজ শেয়ার করুণ..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *